প্রচ্ছদ » লাইফস্টাইল » বিস্তারিত

সেরা ৫টি ক্যারিয়ার

২০১৫ সেপ্টেম্বর ২৮ ১৯:১২:৪৯
সেরা ৫টি ক্যারিয়ার

দ্য রিপোর্ট ডেস্ক : শুধু টেবিলে বসে গণিতের হিসাব কষলেই তো হয় না। জীবন গড়ার হিসাবও করতে হয় সচেতনদের। সুখী, ঝামেলাহীন ও দারুণ একটি জীবন পেতে হলে ক্যারিয়ার সম্পর্কে সচেতন হওয়া জরুরি। এ বিষয়টি বিবেচনায় রেখে ৫টি আধুনিক ক্যারিয়ার সম্পর্কে আলোচনা থাকছে এই প্রতিবেদনে।

আইটি প্রোগ্রামার

তথ্য-প্রযুক্তির এ যুগে দিনকে দিনে প্রসার হচ্ছে আইটি খাতে কাজের ক্ষেত্র। পেশা বা ক্যারিয়ার হিসেবে যারা এই খ্যাতে নিজেদের জড়াবেন তাদের সিদ্ধান্ত হবে সময়োপযোগী। এক্ষেত্রে ক্যারিয়ার হিসেবে আইটি প্রোগ্রামার দারুণ একটি জায়গা। কম্পিউটারের এ্যাপ্লিকেশন নির্মাণ ও সংশোধনসহ সফটওয়্যার এ্যাপ্লিকেশনের কোডগুলো লেখেন আইটি প্রোগ্রামার। এ জন্য প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ ও অন্য সফটওয়্যার সম্পর্কে ভালো ধারণা থাকতে হয় একজন প্রোগ্রামারের। এ পেশায় সামাজিক মর্যাদার সঙ্গে সঙ্গে বিপুল অর্থও আয় করা সম্ভব।

বিজ্ঞাপন প্রফেশনাল

পণ্য, সংবাদ, নাটক বা ইভেন্ট সম্পর্কে প্রচার বা প্রসারের জন্য প্রয়োজন বিজ্ঞাপন। এ জন্য কদর বাড়ছে বিজ্ঞাপনের সঙ্গে জড়িত মানুষের। কোম্পানি, টেলিভিশন, প্রিন্ট মিডিয়া ও অনলাইনসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে কাজের সুযোগ রয়েছে এই খাতের সঙ্গে জড়িত প্রফেশনালদের। এ পেশায় যারা আসতে ইচ্ছুক তারা কিছুটা অভিজ্ঞ হলে পেতে পারেন আকষর্ণীয় বেতনসহ অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা। এ পেশায় কাজের ক্ষেত্রেগুলো হচ্ছে— মিডিয়া প্ল্যানিং এ্যান্ড বায়িং, প্রোডাকশন, ডিজিটাল মার্কেটিং, ইভেন্টস এ্যান্ড এ্যাক্টিভেশন, চ্যানেল মার্কেটিং, রেডিও, পিআরসহ আরও অনেক ক্ষেত্র।

অনুবাদক

বিশ্বায়নের এ যুগে এক ভাষা থেকে ভাষায় অনুবাদ করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটি ক্ষেত্র হয়ে উঠেছে। তাই নির্ভুলভাবে যারা ভাষান্তর করতে পারেন, পেশা হিসেবে তারা এটিকে বেছে নিতে পারেন। কারণ বর্তমানে ব্যাপক চাহিদা রয়েছে অনুবাদকের। যদিও সহজে কাজটি শেখা যায় না। এ জন্য প্রয়োজন যথাযথ শিক্ষা, প্রশিক্ষণ ও অভিজ্ঞতার। কিন্তু ঠিকঠাক আয়ত্ত করতে পারলে বিভিন্ন দেশী-বিদেশী প্রতিষ্ঠান, দূতাবাস, মাল্টিন্যাশনাল প্রতিষ্ঠানে আকষর্ণীয় বেতনে কাজ করতে পারবেন আপনি।

এ্যাকচুয়ারি

বীমার ঝুঁকি বিষয়ে হিসাবের কাজ করে এ পেশায় যুক্তরা। এরা সাধারণত নিজেদের গাণিতিক জ্ঞান নিখুঁতভাবে ব্যবহার করে সম্ভাব্যতা ও ঝুঁকি ইত্যাদি নির্ণয় করে। তাদের নির্ণীত এ ঝুঁকির মাত্রার ওপর ভিত্তি করে বীমার প্রিমিয়াম ও অন্য আর্থিক বিষয়গুলো নির্ণয় করে প্রতিষ্ঠান।

ভেটেরিনেরিয়ান

পশু-প্রাণীদের বিভিন্ন রোগের চিকিৎসায় কাজ করেন ভেটেরিনেরিয়ানরা। সনাতনী ধ্যান-ধারণার জায়গায় আধুনিক নানা পদ্ধতির সমন্বয় কাজ করতে হয় তাদের। এ কাজে সাফল্য পেতে প্রয়োজন সংশ্লিষ্ট বিষয়ে শিক্ষা ও প্রশিক্ষণের। অবশ্য যথাযথভাবে এটি আয়ত্ত করতে পারলে পর্যান্ত পরিমাণ অর্থ আয় করা সম্ভব।

(দ্য রিপোর্ট/সিজি/এইচএসএম/সা/সেপ্টেম্বর ২৮, ২০১৫)