প্রচ্ছদ » শেয়ারবাজার » বিস্তারিত

তৃতীয় প্রান্তিকে গ্রামীণফোনের ইপিএস কমেছে ২২.৪৭ শতাংশ

২০১৫ অক্টোবর ১৯ ১১:১১:২৬
তৃতীয় প্রান্তিকে গ্রামীণফোনের ইপিএস কমেছে ২২.৪৭ শতাংশ

দ্য রিপোর্ট প্রতিবেদক : পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত টেলিযোগাযোগ খাতের একমাত্র কোম্পানি গ্রামীণফোনের শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) কমেছে ২২.৪৭ শতাংশ। আগের হিসাব বছরের তৃতীয় প্রান্তিকের তুলনায় চলতি হিসাব বছরের তৃতীয় প্রান্তিকে কোম্পানির এ আয় কমেছে। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

চলতি হিসাব বছরের তৃতীয় প্রান্তিকের (জুলাই ’১৫ থেকে সেপ্টেম্বর ’১৫) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী গ্রামীণফোনের শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩.০৭ টাকা। আগের বছর একই সময়ে এ আয়ের পরিমাণ ছিল ৩.৯৬ টাকা।

এ হিসাবে আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় কোম্পানির আয় কমেছে ২২.৪৭ শতাংশ।

অপরদিকে চলতি হিসাব বছরের প্রথম ৯ মাসের (জানুয়ারি ’১৫ থেকে সেপ্টেম্বর ’১৫) অনিরীক্ষিত হিসাব অনুযায়ী কোম্পানির শেয়ারপ্রতি আয় হয়েছে ১০.৮৩ টাকা। আগের বছরের একই সময়ে এ আয়ের পরিমাণ ছিল ১১.৭৯ টাকা। এ হিসাবে আগের হিসাব বছরের তুলনায় চলতি হিসাব বছরের প্রথম ৯ মাসে কোম্পানির আয় কমেছে ৮.১৪ শতাংশ।

এছাড়া হিসাব বছরের প্রথম ৯ মাসে কোম্পানির শেয়ারপ্রতি নগদ অর্থ প্রবাহের পরিমাণ ২১.৫৮ টাকা। আগের বছর একই সময়ে এর পরিমাণ ছিল ১৮.৪৪ টাকা।

২০১৫ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর কোম্পানির শেয়ারপ্রতি সম্পদের পরিমাণ ছিল ১৯.৫৫ টাকা। আগের বছর এ সম্পদের পরিমাণ ছিল ২০.৩৫ শতাংশ। এ হিসাবে গ্রামীণফোনের শেয়ারপ্রতি সম্পদ কমেছে ৩.৯৩ শতাংশ।

এদিকে পুঁজিবাজারে একক বৃহত্তম মূলধনী এ কোম্পানির শেয়ারের দর গত ৩ মাস ধরে ধারবাহিকভাবে কমছে। গত জুলাই মাসের মাঝামাঝিতে কোম্পানির শেয়ারের দর ছিল ৩৪৭.৭ টাকা। ১৮ অক্টোবর দিনশেষে কোম্পানির শেয়ারের সমাপনী দর নেমে আসে ২৪৪.৬ টাকায়। ৩ মাসের ব্যবধানে গ্রামীণফোনের শেয়ারের দর কমেছে ২৯.৬৫ শতাংশ।

এদিকে আয় কমে যাওয়ায় সোমবার লেনদেন শুরুর প্রথম আধ ঘণ্টায় গ্রামীণফোনের শেয়ারের দর ১.৬ টাকা কমে বেলা ১১টায় ২৪৩ টাকায় লেনদেন হচ্ছিল।

গ্রামীণফোনের আয় কমছে-এমন খবরে বিদেশী বিনিয়োগকারীরা এ কোম্পানির শেয়ার বিক্রি করে দিচ্ছেন বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন। গ্রামীণফোনের শেয়ারের দর কমে যাওয়ার কারণে সম্প্রতি শেয়ারবাজোরে বড় ধরনের দরপতন ঘটেছে।

গত এক সপ্তাহের ব্যবধানে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের প্রধান সূচক ডিএসই ব্রড ইনডেক্স (ডিএসইএক্স) কমেছে ১৫০ পয়েন্টেরও বেশী।

২০০৯ সালে গ্রামীণফোন শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত হয়।

(দ্য রিপোর্ট/এমকে/এনআই/অক্টোবর ১৯, ২০১৫)