প্রচ্ছদ » জেলার খবর » বিস্তারিত

গাংনীর সাত খুনের দায়ে লাল্টুসহ ৫ আসামির যাবজ্জীবন

২০১৫ অক্টোবর ১৯ ১৪:১৮:০৭
গাংনীর সাত খুনের দায়ে লাল্টুসহ ৫ আসামির যাবজ্জীবন

মেহেরপুর প্রতিনিধি : জেলার গাংনী উপজেলার আড়পাড়া-জালশুকা গ্রামের আলোচিত সেভেন মার্ডার মামলায় চরমপন্থী সংগঠন বাংলার কমিউনিস্ট পার্টির খুলনা বিভাগীয় প্রধান নুরুজ্জামান লাল্টুসহ পাঁচ আসামিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

মেহেরপুর অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক টি.এম মুসা সোমবার দুপুরে ওই দণ্ডাদেশ ঘোষণা করেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- দক্ষিণ পশ্চিম অঞ্চলের এক সময়ের ত্রাস ও চরমপন্থী সংগঠন বাংলার কমিউনিস্ট পার্টির খুলনা বিভাগীয় প্রধান চুয়াডাঙ্গার কয়রাডাঙ্গার নুরুজ্জামান লাল্টু, গাংনীর জালশুকা গ্রামের ইউনুছ আলী ও তার ভাই ইকরামুল হক এবং একই গ্রামের আবুল কাশেম ও মাসুদ রানা।

রায় ঘোষণার সময় দণ্ডপ্রাপ্তরা আদালতে উপস্থিত ছিলেন। মামলার বাকি আসামিরা বেকসুর খালাস পেয়েছেন।

তবে রায়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন মামলার বাদী জালশুকা গ্রামের জালাল উদ্দীন ও রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী কাজী শহিদুল হক।

একই প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন আসামিপক্ষের আইনজীবী একেএম শফিকুল আলম।

১৯৯৪ সালের ২৯ আগস্ট রাতে গাংনী উপজেলার জালশুকা গ্রামের দুই পরিবারের পাঁচ জনসহ সাত জনকে কুপিয়ে হত্যা করে সন্ত্রাসীরা। নিহতরা হলেন- শওকত মালিথার, তার ছেলে হেলাল মালিথা, তারা চাঁদের ছেলে নুর ইসলাম, আলতাফ মোল্লা, তার ছেলে একরাম মোল্লা, ছেলে কুদ্দুস মোল্লা ও আমিনুল মোল্লা।

পরদিন নিহতদের পরিবারের পক্ষ থেকে গাংনী থানায় দুটি মামলা দায়ের করা হয়। একটি মামলা অনেক আগেই মীমাংসা হলেও অপর মামলায় সোমবার রায় হল।

(দ্য রিপোর্ট/এইচএইচ/এফএস/এনআই/অক্টোবর ১৯, ২০১৫)